Health Tips: আপনার কান ও শ্রবণশক্তি ঠিক রাখতে এক্ষুনি এই ৪ টি অভ্যাস ছাড়ুন

বয়স বৃদ্ধির সাথে সাথে কানের সমস্যা, বিশেষ করে কম শ্রবণশক্তি সমস্যা দেখা যায়। বর্তমানে এই সমস্যাটি অল্প বয়স্কদের মধ্যেও দ্রুত বাড়তে দেখা যাচ্ছে। অনিয়মিত জীবনযাপন শুধুমাত্র ডায়াবেটিস এবং হৃদরোগের মতো সমস্যা বাড়ায় না, এটি বধিরতার একটি প্রধান কারণ। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, কান সুস্থ রাখতে এবং শ্রবণশক্তি বজায় রাখতে জীবনযাপনের অভ্যাসের পাশাপাশি সঠিক খাদ্যাভ্যাস বজায় রাখা খুবই জরুরি।

কানের সমস্যা

অনিয়মিত জীবনযাত্রার অভ্যাস শুধু আপনার শ্রবণশক্তিকে প্রভাবিত করে না, বরং অনকে শারীরিক সমস্যার সৃষ্টি করে। জেনে-বুঝে আমরা প্রতিদিন এমন অনেক কাজ করে থাকি, যা আমাদের কানের শ্রবণশক্তির ওপর নেতিবাচক প্রভাব ফেলে। বিশেষজ্ঞরা এসব অভ্যাস এড়িয়ে চলার পরামর্শ দেন। আসুন জেনে নিই এমনই কিছু বদ অভ্যাস সম্পর্কে, যেগুলো সবাইকে এড়িয়ে চলতে হবে।

হেডফোন থেকে কানের ক্ষতি

কোলাহলপূর্ণ বা উচ্চস্বরে গান শোনা ছাড়ুন

শব্দ দূষণ শ্রবণশক্তি হ্রাসের অন্যতম প্রধান কারণ হিসাবে বিবেচিত হয়। উচ্চ শব্দে গান শোনা, দীর্ঘ সময় ইয়ারফোনের শব্দ বেশি রেখে গান শোনা ইত্যাদি কারণে কানের মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে। ইয়ারফোনের কারণে এই সমস্যা গত কয়েক বছরে খুব দ্রুত বাড়তে দেখা গেছে। উচ্চ শব্দের কারণে কানের পর্দায় বেশি চাপ পড়ে, যার কারণে বধির হওয়ার আশঙ্কা থাকে।

প্রাথমিক লক্ষণ উপেক্ষা করবেন না 

কান শরীরের সবচেয়ে সংবেদনশীল অঙ্গগুলির মধ্যে একটি, তাই কানে যে কোনও ধরনের সমস্যা দেখা দিলে তা উপেক্ষা করা উচিত নয়। কানে ব্যথা বা কানে বাজানোর মতো লক্ষণগুলি অভ্যন্তরীণ সমস্যাগুলি নির্দেশ করতে পারে। এই  লক্ষণগুলো যদি সময়মতো মনোযোগ দিয়ে চিকিৎসা করা হয়, তাহলে শ্রবণশক্তি হারানোর ঝুঁকি অনেকাংশে কমে যেতে পারে।

নিয়মিত ব্যায়াম করলে কান সুস্থ থাকে

যোগাসন অনুশীলনের অভাব

বসে থাকা জীবনযাপন পুরো শরীরের ক্ষমতা নষ্ট করে, কানও এর থেকে ক্ষতির ঝুঁকিতে থাকতে পারে। যোগাসন অনুশীলনের অভাব ডায়াবেটিস এবং রক্ত ​​​​সঞ্চালনের সমস্যার ঝুঁকি বাড়ায়, যার কারণে কানের সমস্যা হওয়ার ঝুঁকি থাকে। তাই নিয়মিত যোগাসন অনুশীলন করুন এবং সর্বাঙ্গ সুন্দর থাকুন।

ধূমপান থেকে কানের ক্ষতি

ধূমপান থেকে কানের ক্ষতি

ধূমপানের অভ্যাস সাধারণত ফুসফুস এবং হার্টের জন্য গুরুতর বলে মনে করা হয়, তবে গবেষণায় দেখা যায় যে এটি কানের সমস্যাও হতে পারে। সিগারেটের ধোঁয়ায় থাকা রাসায়নিকগুলি আপনার কানের স্নায়ু এবং কোষকে প্রভাবিত করতে পারে, যার ফলে শ্রবণশক্তি কমে যায়। এই অভ্যাসটিকে কম বয়সে বধিরতা বৃদ্ধির সমস্যার প্রধান কারণ হিসেবে দেখা হচ্ছে।

Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url